1. mahbub@krishinews24bd.com : krishinews :

মজুদ পর্যাপ্ত, তারপরেও লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে পেঁয়াজের দাম

  • আপডেট টাইম : Tuesday, September 15, 2020
  • 32 Views
মজুদ পর্যাপ্ত, তারপরেও লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে পেঁয়াজের দাম
মজুদ পর্যাপ্ত, তারপরেও লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে পেঁয়াজের দাম

নিউজ ডেস্কঃ
ভারত থেকে পেঁয়াজ রপ্তানির বন্ধের খবরে ক্রমেই অস্থির হয়ে পড়েছে বাজার। জেলা শহর থেকে শুরু করে প্রত্যন্ত গ্রামে ঘণ্টার ব্যবধানে কেজিতে পেঁয়াজের দাম লাফিয়ে লাফিয়ে দ্বিগুণেরও বেশি হচ্ছে।

আরও মূল্য বৃদ্ধির আশায় কোনো কোনো স্থানে মজুদদাররা পেঁয়াজের কৃত্রিম সংকট তৈরি করে বিক্রি বন্ধ করে দিয়েছে।

কুমিল্লা নগরীর কয়েকটি বাজার ঘুরে ও জেলার বিভিন্ন উপজেলার বাজারগুলো থেকে স্থানীয়ভাবে খোঁজ নিয়ে পেঁয়াজের এ আকস্মিক মূল্য বৃদ্ধির খবর জানা গেছে।

জানা যায়, ভারত থেকে সোমবার বাংলাদেশে পেঁয়াজ রপ্তানি বন্ধের খবরে কুমিল্লা জেলার বিভিন্ন গোডাউন ও দোকানগুলোতে পেঁয়াজের পর্যাপ্ত মজুদ থাকা সত্ত্বেও লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ানো হয়েছে দাম।

সোমবার কুমিল্লার বাজারে পেঁয়াজের কেজি ৩৫ থেকে ৪০ টাকা দরে বিক্রি করা হয়। এর একদিন পরই মঙ্গলবার কুমিল্লা নগরীর চকবাজার, রাজগঞ্জ, নিউমার্কেটসহ বিভিন্ন বাজার পরিদর্শনকালে ভোক্তাদের নিকট প্রতি কেজি পেঁয়াজ ৭০ থেকে ৮০ টাকায় বিক্রি করতে দেখা গেছে।

কুমিল্লা নগরীর চকবাজারের হাজী ফয়েজ স্টোরের মালিক জসীম উদ্দীনের দোকানে ৩৫ বস্তা পেঁয়াজ মজুদ দেখা গেলেও তা বিক্রি হয়ে গেছে বলে তিনি দাবি করেন।

সিরাজুল হক স্টোরের মাসুদ মিয়া জানান, সকালে ম্যাজিস্ট্রেট এসে ৪৫ টাকা মূল্য নির্ধারণ করে দিয়েছে, কিন্তু আমরা বেশি টাকা দিয়ে কিনেছি, তাই ওই দরে পেঁয়াজ বিক্রি করতে পারছি না।

শাহপরান ট্রেডার্সের লিটন মিয়া জানান, ম্যাজিস্ট্রেটের ৪৫ টাকা ধার্য মূল্য অনুযায়ী পেঁয়াজ বিক্রি করা সম্ভব নয়।

নগরীর দক্ষিণ চর্থা এলাকার বাসিন্দা আবুল হাসেম জানান, সোমবার পেঁয়াজের কেজি ৪০ থেকে ৪৫ টাকা দরে বিক্রি হয়েছে, অথচ একদিনের ব্যবধানে মঙ্গলবার তা কিনতে হয়েছে ৭৫ টাকা কেজি দরে।

এছাড়া জেলার চৌদ্দগ্রামের মিয়াবাজার, দাউদকান্দি উপজেলা সদরসহ প্রত্যন্ত অঞ্চলের হাটবাজার গুলোতে ৭৫ থেকে ৮০ টাকা কেজি দরে পেঁয়াজ বিক্রি হচ্ছে বলে খবর পাওয়া গেছে।

মঙ্গলবার বিকাল ৫টার দিকে দেবীদ্বার নিউমার্কেট থেকে সংবাদকর্মী ফখরুল ইসলাম সাগর জানান, উপজেলা সদরের খুচরা বাজারে সোমবার ৪৫ থেকে ৫০ টাকা কেজি দরে পেঁয়াজ বিক্রি হলেও ১২ ঘণ্টার ব্যবধানে দাম বেড়ে ৮০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

এদিকে ভারত থেকে পেঁয়াজ রপ্তানি বন্ধের খবর ছড়িয়ে পড়ার পর পেঁয়াজের কৃত্রিম সংকটের কারণে আরও মূল্য বৃদ্ধির আশংকায় মঙ্গলবার দুপুরে হাটবাজারগুলোতে পেঁয়াজের জন্য দোকানে ক্রেতাদের ভিড় করতে দেখা গেছে।

ক্রেতারা পেঁয়াজের লাগামহীন মূল্য বৃদ্ধির জন্য স্থানীয় প্রশাসন ও ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের স্থানীয় কর্মকর্তা-কর্মচারীদের দুষছেন।

তবে অধিদপ্তরের কুমিল্লা সহকারী পরিচালক মো. আসাদুল ইসলাম জানান, অধিক মূল্যে পেঁয়াজ বিক্রির দায়ে মঙ্গলবার নগরীর চকবাজারের আরিশা, শাহপরান, নকুল, মতিন ও রেভতী স্টোরকে মোট ৩২ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে।

মফস্বলের বাজারগুলোতে অতিরিক্ত মূল্য বৃদ্ধির বিষয় সম্পর্কে জানতে চাইলে তিনি তা স্থানীয় প্রশাসনকে জানানোর পরামর্শ দেন।

কুমিল্লা জেলা প্রশাসক মো. আবুল ফজল মীর জানান, পেঁয়াজের বাজার নিয়ন্ত্রণে রাখতে জেলা প্রশাসনের পক্ষ থকে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করা হচ্ছে।

সুত্রঃইত্তেফাক

নিউজ টি শেয়ার করে অন্যদের জানার সুযোগ করে দিন...

এ জাতীয় আরো খবর..

© All rights reserved © 2020 krishinews24bd

Site Customized By NewsTech.Com